রবিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, ০৪:০৪ অপরাহ্ন

খালাস পেলেন মন্ত্রী মায়া

খালাস পেলেন মন্ত্রী মায়া

দুর্নীতির মামলায় ১৩ বছরের সাজা বাতিল করে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়াকে বেকসুর খালাস দিয়েছে হাইকোর্ট। বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কেএম হাফিজুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ গতকাল সোমবার এ রায় দেন।

এর আগে ২০১০ সালের ২৭ অক্টোবর হাইকোর্টের অপর একটি ডিভিশন বেঞ্চ মায়াকে খালাস দিয়েছিলো। খালাসের ওই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করে দুদক। ২০১৫ সালের ১৪ জুন আপিল বিভাগ খালাসের ওই রায় বাতিল করে হাইকোর্টে আপিলের ওপর পুন:শুনানির জন্য মামলার পক্ষগণকে নির্দেশ দেয়। ওই নির্দেশের পর চলতি বছরের আগস্ট মাসে আপিলের ওপর শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ওই শুনানি নিয়ে ৭ অক্টোবর রায়ের জন্য দিন ধার্য করে হাইকোর্ট। রায়ের জন্য দিন ধার্য থাকলেও রবিবার মায়ার আইনজীবী সাইদ আহমেদ রাজা আপিলের ওপর অধিকতর শুনানি করেন। গতকাল ওই শুনানির জবাবে বক্তব্য রাখেন দুদক কৌঁসুলি খুরশীদ আলম খান। শুনানি শেষে হাইকোর্ট মায়ার আপিল গ্রহণ করে তাকে খালাস দেয়।

রায়ের পর মায়ার আইনজীবী সাঈদ আহমেদ রাজা বলেন, অবৈধ সম্পদ অর্জনের কোনো প্রমাণ দুদক দেখাতে পারেনি। এ কারণে তিনি খালাস পেয়েছেন। এর ফলে আগামী সংসদ নির্বাচনে তার অংশগ্রহণ করতে আর কোনো বাধা থাকল না।

দুদক কৌঁসুলি খুরশীদ আলম খান বলেন, রায়ের বিষয়টি জানানো হয়েছে। কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

৬ কোটি ২৯ লাখ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন এবং ৫ কোটি ৮ লাখ টাকার সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগে ২০০৭ সালের ১৩ জুন সূত্রাপুর থানায় আওয়ামী লীগ নেতা মায়ার বিরুদ্ধে মামলা করে দুদক। এই মামলায় ২০০৮ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি বিশেষ জজ আদালত তাকে ১৩ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেয়।

দয়া করে সংবাদটি শেয়ার করুন

© ২০১8-২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত জন সংবাদ | সহযোগিতায় ক্লাইম্যাক্স আইটি নেট |
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি