রবিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, ০৬:৩৫ অপরাহ্ন

প্রধানমন্ত্রী উদ্ভোধন করে গেলেও জকিগঞ্জের রাস্তা সংস্কারে উদাসীন কর্তৃপক্ষ

প্রধানমন্ত্রী উদ্ভোধন করে গেলেও জকিগঞ্জের রাস্তা সংস্কারে উদাসীন কর্তৃপক্ষ

ছিদ্দিকুর রহমান (সিলেট) জেলা প্রতিনিধি

বিগত দুই বছর থেকে জকিগঞ্জের রাস্তার অবস্থা বেহাল। প্রধানমন্ত্রী রাস্তার উদ্ভোধন করে গেলেও রাস্তা সংস্কারের নেই কোন অগ্রগতি। সিলেট -জকিগঞ্জ রাস্তা দীর্ঘ দুই বছর থেকে চলাচলের অযোগ্য থাকার পর ৬৬ কিঃমিঃ রাস্তার জন্য ১৮৬ কোটি টাকা বাজেট পাশ হয়। সিলেট -চারখাই রাস্তার কিছু অংশ কাজের পর উক্ত রাস্তার উদ্ভোধন করেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা।

৩০ ই জানুয়ারী সিলেটের ঐতিহাসিক আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে আওয়ামীলীগের এক জনসভায় বেশ কয়েকটি প্রকল্প উদ্ভোধন করেন। এর মধ্যে দীর্ঘ দিনের প্রতিক্ষীত সিলেট -জকিগঞ্জ রাস্তাটিও ছিল। প্রধানমন্ত্রী উদ্ভোধন করে যাওয়ার পর সিলেট – চারখাই রাস্তা সংস্কার হলেও জকিগঞ্জ -বটরতল রাস্তা চলাচলের অযোগ্য।

উক্ত রাস্তা জকিগঞ্জ -কানাইঘাট দুই উপজেলার মানুষ জেলা শহর সিলেটে আসার এক মাত্র মাধ্যম। রাস্তাটি সংস্কারের জন্য ইতিপূর্বে বেশ কয়েকবার আন্দোলন ও হয়েছিল। আন্দোলন যখন চরম পর্যায়ে পৌছে যায় তখন কিছু ইট, বালি দিয়ে মেরামত করা হয়। কিছু দিন যেতে না যেতেই আবারও রাস্তা চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়ে। রাস্তার জন্য বাজেট ঘোষনার পর থেকে জকিগঞ্জবাসী আশাবাদী ছিলেন রাস্তা দ্রুত সংস্কার হবে। কিন্তু রাস্তা সংস্কারে কর্তৃপক্ষ উদাসীন। বর্ষাকাল চলে আসায় বৃষ্টির কারনে রাস্তায় যান চলাচল করা বিপদজনক হয়ে পড়ে। তাই প্রায় যান চলাচল বন্ধ রাখতে হচ্ছে।

উদ্ভোধনের পর ও রাস্তার কাজ না হওয়াতে ক্ষোভে ফুঁসছে জকিগঞ্জবাসী। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে সমালোচনার ঝড় ঊঠেছে। জনগন স্থানীয় এম.পি,উপজেলা চেয়ারম্যান, ও আওয়ামীলীগ নেতাদের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। রাস্তা সংস্কারের জন্য জকিগঞ্জবাসী কর্তৃপক্ষ সু দৃষ্টি কামনা করেন। অতি দ্রুত রাস্তা সংস্কার না হলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারী দিচ্ছেন জকিগঞ্জবাসী।

দয়া করে সংবাদটি শেয়ার করুন

© ২০১8-২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত জন সংবাদ | সহযোগিতায় ক্লাইম্যাক্স আইটি নেট |
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি